প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ছবি - প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম, প্রতিবন্ধী ভাতা কবে দিবে, প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশেও শারীরিকভাবে অসচ্ছল ব্যক্তিদের জন্য সরকারিভাবে বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দেয়া হয়ে থাকে। এরই ধারাবাহিকতায় ২০০১ সালে প্রতিবন্ধী কল্যাণ আইন ২০০১, বিল পাস হয়। এই নীতির আওতায় প্রতিবছর বাংলাদেশের কয়েক লক্ষ শারীরিক প্রতিবন্ধী কে সরকারি তহবিল থেকে ভাতা দেয়া হয়। কিন্তু এই ভাতার জন্য প্রথমে আপনাকে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। সকল তথ্য উপাত্ত ও কাগজপত্র ঠিক থাকলেই একজন প্রতিবন্ধী ভাতা দেয়ার জন্য নির্বাচন করা হবে।

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ছবি – প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম

আজকে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম, প্রতিবন্ধী ভাতা কবে দিবে, প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা বিস্তারিত জানার চেষ্টা করব। সম্পূর্ণ প্রক্রিয়াটি শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত কিভাবে সম্পন্ন করতে হয় সে ব্যাপারে বিস্তারিত আলোচনা করার চেষ্টা করব।

প্রতিবন্ধী ভাতার বিজ্ঞপ্তি

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ছবি – প্রতিবন্ধী ভাতা বিজ্ঞপ্তি ২০২২

২০২২-২৩ অর্থবছরের শারীরিকভাবে অসচ্ছল অর্থাৎ প্রতিবন্ধীদের জন্য সরকারি ভাতা বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। এবছরের বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী ২০২২-২৩ অর্থবছরের সর্বমোট ২৩ লক্ষ ৬৫ হাজার জনকে সরকারিভাবে হবে। মাসিক ভাতার পরিমাণ ৭৫০ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ৮৫০ টাকা করা হয়েছে। প্রতিবন্ধী ভাতা কার্যক্রম খাতে মোট বরাদ্দের পরিমাণ ২৪২৯.১৮ কোটি টাকা। সম্পূর্ণ বিজ্ঞপ্তি ছবি আকারে উপরে দেয়া আছে চাইলে দেখে নিতে পারেন। আর প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিচে আমরা বিস্তারিত আলোচনা করেছি। তাই নিয়মটি ভালোভাবে দেখে নিন।

আরো পড়ুন – সরকারি প্রতিবন্ধী স্কুলের নামের তালিকা – ঢাকার সেরা বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল সমূহ

প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা

যারা প্রতিবন্ধী ভাতার জন্য আবেদন করবেন তাদের অনেকের মনে প্রশ্ন জাগে প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা করে দেয়। ২০২২ সালের আগে প্রতিমাসে প্রতিবন্ধী ভাতা ৭৫০ টাকা করে দেয়া হতো। কিন্তু নতুন নিয়ম অনুযায়ী ২০২২-২৩ অর্থবছর থেকে প্রতিমাসে ৮৫০ টাকা করে ভাতা দেয়া হবে অর্থাৎ প্রতি মাসে ১০০ টাকা করে অতিরিক্ত দেয়া হবে। তাই বর্তমানে যদি কেউ প্রতিবন্ধী ভাতার জন্য আবেদন করা হলে তিনি ৮৫০ টাকা প্রতি মাসে পাবেন।

প্রতিবন্ধী ভাতা ২০২২ কবে দিবে

অনেকেই আমাদের কাছে জানতে চান প্রতিবন্ধী ভাতা ২০২২ কবে দিবে। ভাতা পাওয়ার জন্য প্রথমে আপনাকে অনলাইনে আবেদন করতে হবে।

অনলাইনে ১০ আগষ্ট ২০২২ থেকে ১০ সেপ্টেম্বর ২০২২ পর্যন্ত নতুন আবেদন গ্রহন করা হবে। নতুন করে যারা সিলেক্ট হবে তারা ১ জুলাই ২০২২ সাল থেকে ভাতা পাবেন। নিচে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিয়ে আলোচনা করবো আশা করি এই ব্যাপারে সম্পূর্ন ধারনা হয়ে যাবে। কেননা ভাতা পাওয়ার জন্য অনলাইনে আবেদনের পাশা পাশি সরাসরি নিকটস্থ সমাজসেবা অফিসে গিয়ে কিছু কাগজপত্র জমা দিতে হবে। নিচে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছি।

প্রতিবন্ধী ভাতা আবেদন করতে কি কি লাগে

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম জানার আগে আপনাকে জানতে হবে প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার জন্য কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন। যেহেতু এটি একটি সরকারি প্রজেক্ট তাই সবগুলো কাগজপত্র ঠিক ভাবে না থাকলে আপনি এই ভাতা পাবেন না। চলুন এক নজরে দেখে নেয়া যাক প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস গুলো কি কি

জাতীয় পরিচয় পত্র (১৮ বছরের উর্দ্ধে)/ জন্ম নিবন্ধন (১৮ বছরের নীচে) – অর্থাৎ যিনি ভাতা নিলেন তার বয়স যদি ১৮ বছরের কম বয়সী ক্ষেত্রে জন্ম নিবন্ধন কার্ড এর প্রয়োজন পড়বে আর যদি বয়স ১৮ বছরের বেশি হয় সে ক্ষেত্রে অবশ্যই জাতীয় পরিচয় পত্র লাগবে

সুবর্ণ নাগরিক কার্ড – আপনারা সকলেই জানেন প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের জন্য বিশেষ পরিচয় পত্র ব্যবস্থা আছে যার নাম সুবর্ণ নাগরিক কার্ড। এই কার্ড ব্যতীত প্রতিবন্ধী ভাতা নেয়া সম্ভব নয়। তাই আপনার যদি সুবর্ণ নাগরিক কার্ড করা না থাকে প্রথমে সে কাজটি করে নিতে হবে।

সক্রিয় মোবাইল নম্বর (নগদ/ বিকাশ) – আবেদন করার সময় আপনাকে একটি মোবাইল নাম্বার দিতে হবে যে নাম্বারে বিকাশ অথবা নগদ একাউন্ট খোলা আছে। কেননা সরাসরি এই নাম্বারে আপনার ভাতার টাকা আসবে। যদি একই পরিবারের একাধিক ব্যক্তি ভাতার জন্য আবেদন করে থাকে সেক্ষেত্রে সবার জন্য আলাদা আলাদা ফোন নাম্বার দিতে হবে

প্রিন্ট করার ব্যবস্থা – অনলাইনে আবেদন শেষে আপনাকে একটি পিডিএফ ফাইল দেয়া হবে। সেই পিডিএফ ফাইলটি প্রেম করে আপনার নিকটস্থ সমাজসেবা কার্যালয়ে জমা দিতে হবে। তাই আবেদন করার সময় খেয়াল রাখবেন অবশ্যই প্রিন্ট করার ব্যবস্থা যেন থাকে। নয়তো ঝামেলায় পড়ে যাবেন।

আরো পড়ুন – সরকারি প্রতিবন্ধী স্কুলের নামের তালিকা – ঢাকার সেরা বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল সমূহ

প্রতিবন্ধী ভাতা অনলাইন আবেদন ২০২২

এই পর্যায়ে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিয়ে আলোচনা করব। যেহেতু এটি একটি লম্বা প্রক্রিয়া তাই চেষ্টা করব ধাপে ধাপে আলোচনা করার। সবগুলো ধাপ মনোযোগ সহকারে অনুসরণ করলে আশা করি কোন সমস্যা ছাড়াই। সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে পারবেন।

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ধাপ ১

ধাপ ১ – প্রথমে আপনাকে https://mis.bhata.gov.bd/onlineApplication এই লিংকে প্রবেশ করতে হবে। এখানে কিছু নিয়ম উল্লেখ করা আছে কারা এই ভাতা পাবেন আর কি কি প্রয়োজনীয় কাগজপত্র লাগবে। তারপর নিচের আমি বুঝেছি, পরবর্তী ধাপে যান এই বাটনে ক্লিক করুন।

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ধাপ ২

ধাপ ২- এই ধাপে নির্বাচন করুন এই নামের একটি বক্স দেখতে পাবেন। ব্ল্যাক বক্সে ক্লিক করার পর কয়েকটি অপশন দেখতে পাবেন সেখান থেকে প্রতিবন্ধী ভাতা অপশনটি সিলেক্ট করুন।

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ধাপ ৩

ধাপ ৩ – যেমনটা আমরা বলেছিলাম প্রতিবন্ধী ভাতা আবেদন করার জন্য জন্ম নিবন্ধন অথবা জাতীয় পরিচয় পত্রের লাগে। প্রতিবন্ধী ব্যক্তির বয়স যদি ১৮ বছরের কম হয় সে ক্ষেত্রে জন্ম নিবন্ধন অপশনটি সিলেক্ট করবেন আর প্রতিবন্ধী ব্যক্তির বয়স যদি ১৮ বছরের বেশি হয় সে ক্ষেত্রে জাতীয় পরিচয় পত্র অপশনটি সিলেক্ট করবেন।

 

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ধাপ ৪

ধাপ ৪ – ধরে নিচ্ছি প্রতিবন্ধী ব্যক্তির বয়স 18 বছরের উপরে সে ক্ষেত্রে জাতীয় পরিচয় পত্র অপশনটি সিলেক্ট করার পর আপনার সামনে এইরকম একটি ওপেন হবে। ফোনের সবগুলো তথ্য সঠিকভাবে পূরণ করতে হবে।

প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম
ধাপ ৫

ধাপ ৫ – আর যদি প্রতিবন্ধীর বয়স 18 বছরের কম হয় তাহলে জন্ম নিবন্ধন অপশনটি সিলেক্ট করার পর এরকম একটি ফরম দেখতে পাবেন। ফরমের তথ্য পূরণের ক্ষেত্রে খেয়াল রাখতে হবে কোনো তথ্য যেন ভুল না হয়। এবং তথ্য পূরণের ক্ষেত্রে আপনার প্রতিবন্ধী আইডি কার্ড অর্থাৎ সুবর্ণ নগরে কার্ডে যে ভাবে লিখা আছে এখানে ও ঠিক একই ভাবে লিখতে হবে অন্যথায় আপনার আবেদন গ্রহণযোগ্য হবে না।

ধাপ ৬ – আপনার নাম, প্রতিবন্ধী আইডি নাম্বার, স্থায়ী ঠিকানা, অস্থায়ী ঠিকানা, মোবাইল নাম্বার এইসব কিছু সঠিকভাবে পূরণ করতে হবে। এর মধ্যে কোন একটি ইনফর্মেশন যদি ভুল থাকে তাহলে আপনার আবেদনটি গ্রহণযোগ্য হবে না। ফরমের যেসকল ফিল্ডের পাশে লালা তারকা চিহ্ন দেয়া আছে সে গুলো অবশ্যই পুরন করতে হবে যে ফেল গুলোর পাশে লাল তারকা চিহ্ন নেই সেগুলো চাইলে পূরণ করতে পারেন কিন্তু না দিলেও সমস্যা নেই।

ধাপ ৭ – এই ধাপে আপনাকে নিজের একটা ছবি দিতে হবে। প্রতিবন্ধী ভাতা আবেদনের ক্ষেত্রে ছবি 200px * 200px হতে হবে। এবং ছবি অবশ্যই হবে। ছবির ফরমেট হতে হবে jpg ফরমেটে

ধাপ ৮ – সকল তথ্য সঠিকভাবে পূরণ করার পর সাবমিট বাটনে ক্লিক করুন। এবং সর্বশেষে আপনাকে এর পিডিএফ ফরমেটে ডাউনলোড করে রাখতে হবে। পিডিএফ ফরমেট টি পরবর্তীতে প্রিন্ট করিয়ে নিকটস্থ সমাজসেবা অফিসে জমা দিতে হবে।

কারা প্রতিবন্ধী ভাতা ২০২২ পাবেন না

উপরে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিয়ে আলোচনা করেছি কিন্তু যেহেতু এটি সরকারি প্রজেক্ট তাই এ কিছু নিয়ম-কানুন এবং রেস্ট্রিকশন করেছে। সরকারের পক্ষ থেকে কিছু বিশেষ নির্দেশনা বলে দেয়া আছে যে কারা এই ভাতা পাবেন।নিচে কারা প্রতিবন্ধী ভাতা পাবেন না তা বলে দেয়ার চেষ্টা  করছি –

  • যারা সমাজসেবা অধিদপ্তর পরিচালিত বয়স্ক ভাতা, বিধবা ও স্বামী নিগৃহীতা মহিলা ভাতা, প্রতিবন্ধী ভাতা, হিজড়া জনগোষ্ঠীর বিশেষ ভাতা, অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর বিশেষ ভাতা, বেদে জনগোষ্ঠীর বিশেষ ভাতা, হিজড়া জনগোষ্ঠীর শিক্ষা উপবৃত্তি, অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর শিক্ষা উপবৃত্তি, প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের জন্য শিক্ষা উপবৃত্তি, বেদে জনগোষ্ঠীর শিক্ষা উপবৃত্তি, চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন কর্মসূচির আওতায় ইতিমধ্যে ভাতা পাচ্ছেন তাদের পুনরায় আবেদন করার প্রয়োজন নেই।
  • একজন ব্যক্তি একাধিকবার আবেদন করতে পারবেনা। অন্যথায় আবেদন বাতিল বলে গণ্য হবে।
  • সরকারি কর্মচারী হলে কিংবা সরকারি কর্মচারী হিসেবে পেনশনভোগী হলে তারা এই ভাতা পাবেন না।
  • অন্য কোনভাবে নিয়মিত সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত হলে তারা এই ভাতা পাবেন না।
  • কোন বেসরকারি সংস্থা/সমাজকল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠান হতে নিয়মিতভাবে আর্থিক অনুদানপ্রাপ্ত হলে।

প্রতিবন্ধী ভাতা ২০২২ কারা পাবেন

উপরে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম নিয়ে আলোচনা করেছিলাম। এখন প্রশ্ন হচ্ছে প্রতিবন্ধী ভাতা 2022 টাকা পাবেন অর্থাৎ প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার যোগ্যতা গুলো কি। নিচে আমরা বাংলাদেশ সরকারের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে উল্লেখ করা পয়েন্ট গুলো নিয়ে আলোচনা করছে

  • আপনি যে এলাকা থেকে এলাকা আবেদন করবে সে এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
  • প্রতিবন্ধী ব্যক্তির বাৎসরিক মাথাপিছু আয় ৩৬,০০০ টাকার বেশি হলে এই ভাতা পাবে না।
  • আবেদনকারীকে অবশ্যই দুঃস্থ প্রতিবন্ধী হতে হবে।
  • আবেদনকারীর বয়স অবশ্যই ৬ বছরের বেশি হতে হবে।
  • আবেদনের সময় সকল তথ্য সঠিকভাবে পূরন করতে হবে।

প্রতিবন্ধী ভাতা কয় মাস পর পর দেয়

সাধারণত প্রতিবন্ধী ভাতা তিন মাস অথবা 6 মাস পরপর আবেদনের সময় দেয়া মোবাইল নাম্বারে বিকাশ বা নগদ নাম্বারে পাঠিয়ে দেয়। বর্তমানে প্রতি মাসে 850 টাকা হারে একজন প্রতিবন্ধী ভাতা পাবেন। এবং প্রতি তিন মাস পর পর আপনার আবেদনের সময় দেয়া বিকাশ নাম্বার অথবা নগদ নাম্বারে অটোমেটিক টাকা চলে আসবে। এক্ষেত্রে আপনি সমাজসেবা অফিসে যাওয়ার প্রয়োজন নেই।

আরো পড়ুন – সরকারি প্রতিবন্ধী স্কুলের নামের তালিকা – ঢাকার সেরা বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল সমূহ

প্রতিবন্ধী ভাতার খবর

অনলাইনে ১০ আগস্ট ২০২২ থেকে ১০ সেপ্টেম্বর ২০২২ পর্যন্ত নতুন আবেদন গ্রহণ করা হবে। আপনি যদি শারীরিকভাবে অসুস্থ হয়ে থাকেন বা প্রতিবন্ধী ক্যাটাগরিতে থাকেন তাহলে এ নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে আবেদন করে অনলাইনে প্রতিবন্ধী ভাতার জন্য এই লিঙ্কে ক্লিক করে আবেদন করতে হবে। আবেদন করা সম্পন্ন হলে আবেদন ফরম প্রিন্ট করে নিকটস্থ সমাজসেবা অফিসে গিয়ে জমা দিতে হবে। আপনার সকল তথ্য সঠিক থাকলে পরবর্তীতে ভাতার জন্য সিলেক্ট করা হবে এবং প্রতিমাসে ৮৫০ টাকা করে ভাতা পাবেন।

উপরে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম দেখিয়েছি তা সম্পূর্নভাবে ফলো করলে কোন সমস্যা ছাড়াই এই ভাতা পেয়ে যাবেন।

প্রতিবন্ধী ভাতার পরিমান

যারা প্রতিবন্ধী ভাতার জন্য আবেদন করবেন তাদের অনেকের মনেই প্রশ্ন থাকে ২০২২ সাল থেকে প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা করে দেয়া হবে। পূর্বে প্রতিবন্ধীদের কি মাসিক ৭৫০ টাকা হারে ভাতা দেয়া হতো কিন্তু ২০২২ অর্থবছর থেকে ৮৫০ টাকা করে প্রতি মাসে দেয়া হবে। অর্থাৎ এখন থেকে প্রতিবন্ধীদের মাসে ৮৫০ টাকা হারে ভাতা পাবেন। এবং প্রতিবন্ধীদের ভাতা জন্য সরকারি বরাদ্দের পরিমাণ ২৪২৯.১৮ কোটি টাকা

প্রতিবন্ধী ভাতা আবেদনের নিয়ম

উপরে আমরা প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার নিয়ম, প্রতিবন্ধী ভাতা কবে দিবে, প্রতিবন্ধী ভাতা কত টাকা এই নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করার চেষ্টা করেছি। আশা করছি ব্লগটি আপনাদের উপকারে এসেছে। ভালো লাগলে আপনার বন্ধু ও প্রিয়জনদের সাথে শেয়ার করুন। আমরা নিয়মিত এই রকম পোষ্ট করার চেষ্টা করার চেষ্টা করি। ভালো লাগলে ওয়েবসাইটের অন্যান্য পোষ্টগুলো পড়তে পারেন। ধন্যবাদ

আরো পড়ুন – সরকারি প্রতিবন্ধী স্কুলের নামের তালিকা – ঢাকার সেরা বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল সমূহ

Easy Teching

ইজি টেকিং - একটি বাংলা ব্লগিং প্লাটফর্ম। এখানে বাংলা ভাষায় শিক্ষা ও প্রযুক্তি বিষয়ক বিভিন্ন জানা-অজানা তথ্য প্রকাশ করা হয়। বাংলা ভাষায় সবার মাঝে সঠিক তথ্য পৌছে দেয়াই আমাদের লক্ষ্য।

This Post Has 3 Comments

  1. ASHRAFUL KARIM

    প্রতিবন্ধী ভাতা ২০০০০ টাকা করে দেওয়া হোক

    1. Admin

      ভাতা কত করে দেয়ে হবে এটা সম্পূর্ন সরকারি একটা ব্যাপার। তবে বর্তমান সময় অনুযায়ী ভাতার পরিমান আসলেই খুব কম।

  2. Madhury Talukder

    2022 সালের সেপ্টেম্বরে ১০ তারিখের মধ্যে যারা আবেদন করেছে তারা কবে পাবে টাকা?

Leave a Reply