সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি, সৌদি আরব সেরা সিমের নাম কি

সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি

বাংলাদেশ থেকে প্রতি বছর কাজের উদ্দেশ্যে এবং হজ্ব করার উদ্দেশ্যে হাজারো মানুষ সৌদি আরব যায়। কাজের জন্য হোক কিংবা হজ করার জন্য হোক সৌদি আরব গেলে প্রথমেই যেটি প্রয়োজন তা হলো একটি ভালো সিম ক্রয় করা। যারা প্রথম বাড়ি যাচ্ছেন তাদের অনেকেই জানেন না কথা বলার জন্য এবং ইন্টারনেট ব্যবহার করার জন্য কোন সিমটি নেয়া ভালো হবে।

সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি
ছবি – সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি

সৌদি আরবে বেশ কয়েকটি প্রিপেইড সিমের কোম্পানি রয়েছে, সেইসাথে বর্তমানে ই-সিম ক্রয়ের ব্যবস্থাও রয়েছে। আপনার প্রয়োজনের উপর নির্ভর করে কোন সিম ক্রয় করা ভালো হবে সে ব্যাপারে পরিষ্কার ধারণা দেয়ার চেষ্টা করব।

আজকে আমরা মূলত সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি, সৌদি আরব সেরা সিমের নাম কি নিয়ে আলোচনা করব। আশা করছি আর্টিকেলটি পড়ার পর সৌদি আরবের ভালো সিম কোনটি এই ব্যাপারে আর কোন প্রশ্ন থাকবে না। চলুন তাহলে শুরু করা যাক

সৌদি আরবে কোন সিম কোম্পানি সবচেয়ে ভালো

সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি তা জানার আগে মোট কতটি কোম্পানি রয়েছে সে ব্যাপারে একটা প্রাথমিক ধারনা নেয়া যাক। তাহলে কন সিমটি ভালো হবে তা বুঝতে কিছুটা সুবিধা হবে।

সৌদি আরবে মূলত তিনটি মোবাইল অপারেটর রয়েছে।

  1. STC (Saudi Telecom Company)
  2. Mobily
  3. Zain

এছাড়াও Jawwy নামে STC কোম্পানির একটি সাব-ব্রান্ড  রয়েছে। অর্থাৎ Jawwy একটি আলাদা কোম্পানির মত সৌদি আরবে ব্যবসা করছে কিন্তু এটি মূলত নিয়ন্ত্রণ করে STC কোম্পানি। আমাদের দেশে যেমন স্কিটো সিম গ্রামিন ফোনের সাব ব্র্যান্ড হিসেবে ব্যবসা করছে।

এবং সর্বশেষ দুটি মোবাইল ভার্চুয়াল অপারেটর রয়েছে সৌদি আরবে অপারেটর দুইটি হল Lebara Mobile KSA
Virgin Mobile KSA 

  1. Jawwy ( Sub brand of STC)
  2. Lebara Mobile KSA (মোবাইল ভার্চুয়াল অপারেটর)
  3. Virgin Mobile KSA (মোবাইল ভার্চুয়াল অপারেটর)

সৌদি আরব সেরা সিমের নাম কি

উপরে আমরা সৌদি আরবের মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলো নিয়ে আইডিয়া নেয়ার চেষ্টা করেছি। এই পর্যায়ে সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি সে ডিসিশন নেয়ার পালা।

কোন সিমটি সবচেয়ে ভালো হবে এর উত্তর দেয়ার আগে আপনি কেন সিম কিনতে যাচ্ছেন সেটি জানা প্রয়োজন। অর্থাৎ আপনি কি মোবাইলে কথা বলার জন্য সিম কিনতে চাচ্ছেন নাকি মূলত ইন্টারনেট ব্যবহার করার জন্য সিম কিনতে চাচ্ছেন।

কথা বলার জন্য সেরা সিম – আপনি যদি মোবাইলে কথা বলার জন্য সিম কিনতে চান সে ক্ষেত্রে সৌদি আরব সেরাসিন হচ্ছে STC। কেননা STC সিমটিতে সৌদি আরবের সেরা নেটওয়ার্ক কাভারেজ রয়েছে অর্থাৎ আপনি যেকোন প্রান্তে গেলে নির্বিঘ্নে দেশে-বিদেশে যেকোনো জায়গায় কথা বলতে পারবেন। তাই কথা বলার জন্য STC সিমটি সেরা।

ইন্টরনেট ব্যবহারের জন্য সেরা সিম – আবার আপনি যদি মূলত ইন্টারনেট ব্যবহার করার জন্য সিম কিনতে চান সে ক্ষেত্রে Zain সিমটি সবচেয়ে ভালো হবে। এই সিমে বিশেষত্ব হচ্ছে তুলনামূলক কম দামে হাই স্পিড ইন্টারনেট প্যাকেজ। সৌদি আরবের অন্যান্য কোম্পানি গুলোর তুলনায় জেইন সিমের ইন্টারনেট প্যাকেজের দাম কম এবং ইন্টারনেট স্পিড সবচেয়ে বেশি পাওয়া যায়।

জেন সিম ইন্টারনেট অফার নিয়ে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন।

সৌরি আরব সিম কিনতে কি লাগে

এই পর্যায়ে আমরা সৌদি আরবে সিম কিনার নিয়ম নিয়ে আলোচনা করবো। সৌদি আরবে সিম ক্রয় করা খুবই সহজ। সৌদি আরবে সিম কিনতে কি কি ডকুমেন্টস লাগে এক নজরে দেখে নেয়া যাক।

সৌদি আরবের স্থায়ী বাসিন্দা দের জন্য – স্থায়ী নাগরিকদের  সিম ক্রয় করতে জাতীয় পরিচয় পত্র ও ফিঙ্গারপ্রিন্ট দিলেই হবে। পূর্বে সিম ক্রয় করতে ফিঙ্গারপ্রিন্ট দেয়া লাগতো না। তবে ২০১৬ সালের পর থেকে সৌদি সরকারের নিয়ম অনুযায়ী সিম ক্রয় করতে জাতীয় পরিচয় পত্রের পাশাপাশি আঙ্গুলের ছাপ দেওয়া লাগবে।

  • সৌদি জাতিয় পরিচয়পত্র
  • আঙ্গুলের ছাপ

প্রবাসী বা ট্যুরিস্টদের জন্য – আপনি যদি সৌদি আরবের স্থায়ী বাসিন্দা না হন অর্থাৎ হজ্জ্বের উদ্দেশ্যে অথবা কাজ করার উদ্দেশ্যে ভিসা নিয়ে সৌদি আরব যান সে ক্ষেত্রে পাসপোর্ট এর ফটোকপি ও আঙ্গুলের সিম ক্রয় করতে পারবেন।

  • পাসপোর্ট বা ভিসার কপি
  • আঙ্গুলের ছাপ

সৌদি আরবে কোথা থেকে সিম ক্রয় করবেন

উপরে আমরা সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি, সৌদি আরব সেরা সিমের নাম কি এই ব্যাপারে ধারণা দেয়ার চেষ্টা করেছি। এই পর্যায়ে আমরা দেখব সৌদি আরবে কোথা থেকে সিম ক্রয় করবেন।

যেমনটা আমরা বলেছি সৌদি আরবের সিম ক্রয় করেন খুবই সহজ। যেকোন শপিং মল, সিম সেন্টার কিংবা এয়ারপোর্ট থেকে সহজেই সিম ক্রয় করা যায়। তবে সবচেয়ে সহজ মাধ্যম হচ্ছে এয়ারপোর্ট থেকে সিম ক্রয় করা।

সৌদি আরবে এয়ারপোর্ট থেকে সিম ক্রয় করার নিয়ম

আপনি যখনই সৌদি আরবের যে কোন এয়ারপোর্টে নামবে সেখানে বিভিন্ন সিম কোম্পানি বিক্রয় কেন্দ্র পেয়ে যাবেন। এবং তাৎক্ষণিক খুব সহজে নিজের ভিসা এবং আঙ্গুলের ছাপ দিয়ে কয়েক মিনিটের মধ্যেই সিম কিনে নিতে পারবেন। সাধারণত এয়ারপোর্টে সব জিনিসের দাম কিছুটা বেশি হয় তবে সিম এর ক্ষেত্রে এয়ারপোর্ট থেকে সিম কিনলে অতিরিক্ত খরচ দিতে হবে না।

তবে কোনো কারণে এয়ারপোর্ট থেকে সিম ক্রয় করার সুযোগ না হলে বাইরে যে কোন শপিংমল কিংবা সিম এর বিক্রয় কেন্দ্রে গিয়ে খুব সহজেই নিজের পছন্দের সিমটি ক্রয় করে নিতে পারেন।

সৌদি আরবে অনলাইনে সিম ক্রয় করার নিয়ম

সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি
ছবি – সৌদি আরবে সিম ক্রয়ের নিয়ম

অনেক সময় যারা সৎ ঘুরতে যান অথবা কাজের উদ্দেশে যান প্রথমদিকে আরবীতে কথা বলে দোকান থেকে বা এয়ারপোর্ট থেকে সিম ক্রয় করা কিছুটা কঠিন মনে হতে পারে।

আপনি যদি এয়ারপোর্ট থেকে বা শপিং মল থেকে সিম ক্রয় করার ঝামেলার মনে হয় সে ক্ষেত্রে আপনি চাইলে অনলাইনে সিম অর্ডার করতে পারেন। এক্ষেত্রে  অনলাইনে অর্ডার করলে তারা আপনার বাসার অ্যাড্রেস এই সিমটি সরাসরি নিয়ে আসবে

সৌদি আরবে অনলাইনে সিম ক্রয় করার নিয়ম বিস্তারিত জানতে এবং অর্ডার করতে এখানে ক্লিক করুন।

সৌদি আরবে একজন ব্যক্তি কয়টা সিম ক্রয় করতে পারেন

উপরে আমরা সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি তা নিয়ে পরিষ্কার ধারণা দেয়ার চেষ্টা করেছি। আশাকরছি আপনাদের ভালো একটি ধারণা হয়েছে। এ পর্যায়ে আমরা আরেকটি কমন প্রশ্নের উত্তর দেয়ার চেষ্টা করব আর তাহলো সৌদি আরবে একজন ব্যক্তি সর্বমোট কতটা সিম ক্রয় করতে পারেন।

সৌদি আরবের স্থায়ী নাগরিক – আপনি যদি সৌদি আরবের স্থায়ী নাগরিক হয়ে থাকেন সেক্ষেত্রে সর্বমোট ১০ সিম ক্রয় করতে পারবেন। অর্থাৎ সৌদি আরবের স্থায়ী নাগরিক একটা জাতীয় পরিচয় পত্রের সর্ব মোট দশটি সিমকার্ড ক্রয় করতে পারবেন এবং ব্যবহার করতে পারবেন একসাথে।

প্রবাসীর ট্যুরিস্টদের জন্য – যারা সৌদি আরব কাজ করার জন্য ভিসা নিয়ে গেছেন অথবা ঘুরতে গেছেন তারা একটা ভিসার আন্ডারে সর্বোচ্চ ২ সিমকার্ড একসাথে ব্যবহার করতে পারবেন। অর্থাৎ একজন টুরিস্ট ভিসা দিয়ে দুইটির বেশি সিম কার্ড করতে পারবেনা এবং ব্যবহার করতে পারবে না।

সৌদি আরবের সিম ক্রয় এর শর্ত

যেমনটা আমরা উপরে বলেছি সৌদি আরবের সিম ক্রয় করা খুবই সহজ এবং কয়েক মিনিটের ব্যাপার। তবে যেহেতু সৌদি আরবে প্রচুর পরিমাণ ঘুরতে যায় এবং হজ করতে যায় তাই সৌদি প্রশাসন বিক্রয়ের জন্য কিছু শর্ত নির্ধারিত করে দিয়েছেন।

  • সিম ক্রয় কারী ব্যাক্তির বয়স অবশ্যই সর্বনিম্ন ১৮ বছর হতে হবে।
  • সৌদি আরবের স্থায়ী নাগরিক হলে অবশ্যই তার জাতীয় পরিচয় পত্র থাকতে হবে।
  • সৌদি আরবের প্রবাসী হলে সে ক্ষেত্রে অবশ্যই বৈধ পাসপোর্ট থাকতে হবে। অর্থাৎ এমন পাসপোর্ট দিয়ে সিম ক্রয় করা যাবে না যার মেয়াদ নেই।

উপরে শর্তগুলো পূরণ করলে খুব সহজে কোন ঝামেলা ছাড়াই সৌদি আরবে সিম ক্রয় করতে পারবেন।

সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি

উপরে আমরা  সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি, সৌদি আরব সেরা সিমের নাম কি এ ব্যাপারে পরিষ্কার ধারণা দেয়ার চেষ্টা করেছি। আশা করছি আর্টিকেলটি আপনাদের কিছুটা হলেও উপকারে এসেছে। যেসব প্রবাসী ভাইয়েরা হজ করার উদ্দেশ্যে অথবা কাজের উদ্দেশ্যে সৌদি আরব যাচ্ছেন তারা STC Zain এই দুইটি সিমের যেকোনো একটি ক্রয় করতে পারেন

আপনাদের কোন প্রশ্ন বা মতামত থাকলে এই পোষ্টের কমেন্ট বক্সে জানাতে পারেন আমরা দ্রুত সময়ের মধ্যে উত্তর দেয়ার চেষ্টা করব। আমরা নিয়মিত প্রবাসী ভাইদের জন্য এই ধরনের আর্টিকেল পোস্ট করে থাকি ভালো লাগলে ওয়েবসাইটের অন্যান্য পোস্টগুলো পড়ে দেখতে পারেন।

ধন্যবাদ

#সৌদি আরবে ভালো সিম কোনটি বিস্তারিত জানুন।

ইজি টেকিং - একটি বাংলা ব্লগিং প্লাটফর্ম। এখানে বাংলা ভাষায় শিক্ষা ও প্রযুক্তি বিষয়ক বিভিন্ন জানা-অজানা তথ্য প্রকাশ করা হয়। বাংলা ভাষায় সবার মাঝে সঠিক তথ্য পৌছে দেয়াই আমাদের লক্ষ্য।

Leave a Comment